বোরহানউদ্দিনে পুলিশ-জনতা সংঘর্ষ

বাংলার কলম বাংলার কলম

নিজেস্ব ডেক্স

প্রকাশিত: ৪:০০ অপরাহ্ণ, অক্টোবর ২০, ২০১৯ | আপডেট: ৪:০০ অপরাহ্ণ

ভোলার বোরহানউদ্দিনে হিন্দু যুবক বিপ্লব চন্দ্র শুভ  কর্তৃক  আল্লাহ ও রাসুল (স:) কে নিয়ে কটুক্তি করার প্রতিবাদে সাধারণ মুসুল্লিদের ডাকা বিক্ষোভ কর্মসূচিতে পুলিশের সঙ্গে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে।

আজ রবিবার (২০ অক্টোবর) সকাল থেকে শুরু হওয়া সমাবেশে হঠাৎ পুলিশের সঙ্গে সাধারণ জনতার এ সংঘর্ষ শুরু হয়।

স্থানীয় ও পুলিশ সূত্রে জানা যায়, হিন্দু ধর্মাবলম্বী বিপ্লব চন্দ্র শুভ’র ফেসবুক আইডি থেকে তার বন্ধু তালিকার বেশ কয়েকজনের কাছে আল্লাহ এবং রাসুল (সঃ) কে নিয়ে কুরুচিপূর্ণ ভাষায় গালির ম্যাসেজ আসে। সে বোরহানউদ্দিন উপজেলার কাচিয়া ইউনিয়নের ২নং ওয়ার্ডের চন্দ্র মোহন বৈদ্দের ছেলে।

তার ফেসবুক আইডি থেকে এই ম্যাসেজ আসাকে কেন্দ্র করে সাধারণ মুসুল্লিদের ব্যানারে আজ সকাল ১০টায় বিক্ষোভের ডাক দেয়া হয়। সকাল থেকে বোরহানউদ্দিন উপজেলার গ্রামগঞ্জ থেকে মুসুল্লিরা শহর অভিমুখে আসতে থাকে। এতে ভোলার পুলিশ সুপার পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণের জন্য পুলিশ মোতায়েন করেন। পুলিশ সভা সংক্ষিপ্ত করার জন্য নির্দেশ দেয়ার পর পরেই সংঘর্ষের শুরু হয়। প্রথমে বিক্ষোভকারীরা পুলিশকে লক্ষ করে ইট-পাটকেল ছুড়লে পুলিশ আত্মরক্ষার্থে গুলি ছুঁড়ে। এসময় পুলিশের গুলিতে পথচারিসহ বিক্ষোভকারীরা আহত হন ৩০০ অধিক এবং 4 নিহত হন জন।

পৌর ৩ নং ওয়ার্ডের সাবেক কাউন্সিলর ও পৌর যুবলীগের আহবায়ক মিরাজ পাটোয়ারীর ছোট ভাই হাফেজ মোঃ মাহফুজ পুলিশের গুলিতে নিহত হয়।

আয়োজিত সমাবেশে পুলিশের গুলিতে শহীদ হন কাচিয়া ২নং ওয়ার্ড